১৭টি প্রতিষ্ঠানের লভ্যাংশের চিত্র

0
1002

সিনিয়র রিপোর্টার : পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ভিন্ন ভিন্ন খাতের ১৭ প্রতিষ্ঠান সপ্তাহজুড়ে লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। প্রতিষ্ঠানগুলো ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ ও ৩০ জুন ২০২১ সমাপ্ত অর্থবছরে নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ ঘোষণা করেছে।

প্রাইম ফাইন্যান্স অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট লিমিটেড: গত ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ তারিখে সমাপ্ত হিসাববছরের জন্য ডিভিডেন্ড সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত জানিয়েছে। আলোচিত বছরের জন্য কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের ‘নো’ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

সর্বশেষ বছরে কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ১৪ পয়সা। আগের বছর ইপিএস ছিল  ১৯ পয়সা। গত ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ১১ টাকা ৭৬ পয়সা।

আগামী  ২৮ অক্টোবর সকাল সাড়ে ১১টায় কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ৩০ সেপ্টেম্বর।

গ্রামীণ ওয়ান: স্কিম টু মিউচুয়াল ফান্ড: ইউনিটহোল্ডারদের জন্য ডিভিডেন্ড ঘোষণা করা হয়েছে। এই ফান্ডের ইউনিটহোল্ডাররা সর্বশেষ হিসাববছরের (জুলাই’২০-জুন’২১) জন্য ১৩% ক্যাশ ডিভিডেন্ড পাবেন।

সর্বশেষ বছরে ফান্ডটি ইউনিট প্রতি আয় (আইপিইউ) হয়েছে ১ টাকা ২১ পয়সা। আগের বছর ফান্ডটির ইউনিট প্রতি ৭৪ পয়সা আয় হয়েছিল।

সর্বশেষ বছরে আনরিয়ালাইজড মুনাফার হিসেবে ফান্ডটির ইউনিট প্রতি আয় ছিল ৬ টাকা ৮ পয়সা। ফান্ডের লভ্যাংশ প্রাপ্তির যোগ্যতা নির্ধারণে রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ২০ সেপ্টেম্বর।

ফান্ডটির সম্পদ ব্যবস্থপানার দায়িত্বে আছে এইমস অব বাংলাদেশ লিমিটেড। আর ট্রাস্টির দায়িত্ব পালন করছে গ্রামীণ ফান্ড।

এইমস সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছরের লভ্যাংশ নিয়ে গত ৩ বছরে ফান্ডটির গড় লভ্যাংশ দাঁড়িয়েছে ৯.৬৭ শতাংশ। করোনা মহামারির মধ্যেও গত বছর এই ফান্ডে ৭% শতাংশ লভ্যাংশ দেওয়া হয়েছিল, যা ওই বছরে তালিকাভুক্ত ফান্ডগুলোর ঘোষিত লভ্যাংশের মধ্যে সর্বোচ্চ।

রিলায়েন্স ওয়ান মিউচুয়াল ফান্ড: ইউনিটহোল্ডারদের জন্য ডিভিডেন্ড ঘোষণা করা হয়েছে। এই ফান্ডের ইউনিটহোল্ডাররা সর্বশেষ হিসাববছরের (জুলাই’২০-জুন’২১) জন্য ১০.৫০% ক্যাশ ডিভিডেন্ড পাবেন।

গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে সমাপ্ত হিসাববছরের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে এ লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়েছে।

সর্বশেষ বছরে ফান্ডটি ইউনিট প্রতি আয় (আইপিইউ) হয়েছে ১ টাকা ৬ পয়সা। আগের বছর ফান্ডটির ইউনিট প্রতি ৪ পয়সা লোকসান হয়েছিল। সর্বশেষ বছরে আনরিয়ালাইজড মুনাফার হিসেবে ফান্ডটির ইউনিট প্রতি আয় ছিল ৪ টাকা ৬ পয়সা।

ফান্ডের লভ্যাংশ প্রাপ্তির যোগ্যতা নির্ধারণে রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ২০ সেপ্টেম্বর।

ফান্ডটির সম্পদ ব্যবস্থপানার দায়িত্বে আছে এইমস অব বাংলাদেশ লিমিটেড। আর ট্রাস্টির দায়িত্ব পালন করছে বাংলাদেশ জেনারেল ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড।

এক্সপ্রেস ইন্স্যুরেন্স: ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ সমাপ্ত অর্থবছরের জন্য ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। অন্তবর্তীকালীন ৫ শতাংশের সঙ্গে আরো ২ শতাংশসহ মোট ৭ শতাংশ ডিভিডেন্ড দেওয়ার সুপারিশ করেছে এক্সপ্রেসের পরিচালনা পর্ষদ।

সর্বশেষ বছরে কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ১ টাকা ৬৪ পয়সা। আগের বছর ইপিএস ছিল ৯৭ পয়সা। গত ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ১৯ টাকা।

জানা যায়, সমাপ্ত অর্থ বছরের বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) আগামী ৯ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। এ সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট আগামী ৭ অক্টোবর নির্ধারণ করা হয়েছে।

দেশ জেনারেল ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড: গত ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ তারিখে সমাপ্ত হিসাববছরের শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ১০ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

সর্বশেষ বছরে কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ১ টাকা ৫১ পয়সা। আগের বছর ইপিএস ছিল ১ টাকা ৩৬ পয়সা। গত ৩১ ডিসেম্বর, ২০২০ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য (এনএভিপিএস) ছিল ১১ টাকা ৯৩ পয়সা।

আগামী ২৮ সেপ্টেম্বর সকাল ১১টায় কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ১৩ সেপ্টেম্বর।

সী পার্ল বীচ লিমিটেড: গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে সমাপ্ত হিসাববছরের শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ১ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। সর্বশেষ বছরে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি আয়  হয়েছে ৬১ পয়সা। আগের বছর শেয়ার প্রতি লোকসান হয়েছিল ০৯ পয়সা।

গত ৩০ জুন, ২০২১ তারিখে কোম্পানিটির শেয়ার প্রতি নিট সম্পদ মূল্য  (এনএভিপিএস) ছিল ১০ টাকা ৬৩ পয়সা।

আগামী ১৩ নভেম্বর ডিজিটাল প্ল্যাটফরমের মাধ্যমে কোম্পানিটির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) অনুষ্ঠিত হবে। এর জন্য রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ১৬ সেপ্টেম্বর।

রূপালী লাইফ ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড: ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ পর্যন্ত কোম্পানিটির সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে সংশ্লিষ্ট বিনিয়োগকারীদের জন্য ১৩ শতাংশ ক্যাশ ও ২ শতাংশ স্টকসহ মোট ১৫ শতাংশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

ঘোষিত ডিভিডেন্ড সংশ্লিষ্ট বিনিয়োগকারীদের সম্মতিতে অনুমোদনের জন্য আগামী ২৮ অক্টোবর সকাল ১০টায় ভার্চুয়াল প্লাটফর্মে অনুষ্ঠিত হবে এ কোম্পানির ২১তম বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম)। এ জন্য রেকর্ড ডেট নির্ধারণ করা হয়েছে ২৩ সেপ্টেম্বর।

ফার্স্ট জনতা ব্যাংক মিউচ্যুয়াল ফান্ড :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ১৩ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি মোট আয় করেছে ২ টাকা ৫৪ পয়সা। গত বছর ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি লোকসান দিয়েছিল ১ টাকা ২৬ পয়সা।

এবি ব্যাংক ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি৮ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি মোট আয় করেছে ২ টাকা ৬২ পয়সা। গত বছর ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি লোকসান দিয়েছিল ১ টাকা ৮১ পয়সা।

ইবিএল ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ১৩শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি মোট আয় করেছে ২ টাকা ৬১ পয়সা। গত বছর ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি লোকসান দিয়েছিল ১ টাকা ৩৫ পয়সা।

ইবিএল এনআরবি মিউচ্যুয়াল ফান্ড:৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ৬ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি আয় করেছে ১ টাকা ৯২ পয়সা। গত বছর ইউনিটপ্রতি লোকসান ছিল ১ টাকা ৩৫ পয়সা।

এক্সিম ব্যাংক ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ৭.৫০ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটি এবার ইউনিটপ্রতি আয় করেছে ২ টাকা। গত বছর লোকসান ছিল ১ টাকা ২৮ পয়সা।

এফবিএফআইএফ :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ৪ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি আয় করেছে ১ টাকা ৯৩ পয়সা। গত বছর লোকসান ছিল ১ টাকা ৫৫ পয়সা।

আইএফআইসি ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ৭.৫০ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটি ইউনিটে আয় করেছে ২ টাকা ৩২ পয়সা। গত বছর ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি লোকসান দিয়েছিল ১ টাকা ৫৮ পয়সা।

পিএইচপি ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ৮.৫০ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটি ইউনিটপ্রতি আয় করেছে ২ টাকা ৪ পয়সা। গত বছর লোকসান ছিল ১ টাকা ২৩ পয়সা।

পপুলার লাইফ ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ৮.৫০ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে।

সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটির ইউনিট প্রতি আয় হয়েছে ২ টাকা ৮ পয়সা। গত বছর ইউনিটপ্রতি লোকসান ছিল ১ টাকা ২৩ পয়সা।

ট্রাস্ট ব্যাংক ফার্স্ট মিউচ্যুয়াল ফান্ড :৩০ জুন, ২০২১ অর্থবছরে ফান্ডটি ৯ শতাংশ ক্যাশ ডিভিডেন্ড ঘোষণা করেছে। সমাপ্ত অর্থবছরে ফান্ডটির ইউনিটপ্রতি আয় হয়েছে ২ টাকা ২৪ পয়সা। গত বছর ইউনিটপ্রতি লোকসান ছিল ১ টাকা ৩৭ পয়সা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here