নিরীক্ষককে অসহযোগিতার দায়ে অ্যাক্টিভ ফাইনকে নোটিস

0
82

স্টাফ রিপোর্টার : অ্যাক্টিভ ফাইন কেমিক্যালসের (এএফসি) নিরীক্ষিত আর্থিক বিবরণী বিশেষ নিরীক্ষার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। বিশেষ নিরীক্ষায় হাওলাদার ইউনুস অ্যান্ড কোং চার্টার্ড অ্যাকাউন্টেন্টকে নিয়োগ দেয়া হয়েছে।

তবে বিশেষ নিরীক্ষা কার্যক্রম পরিচালনায় নিরীক্ষক হাওলাদার ইউনুস অ্যান্ড কোং চার্টার্ড অ্যাকাউন্টেন্টকে সহযোগিতা করেনি অ্যাক্টিভ ফাইন কেমিক্যালস কর্তৃপক্ষ। ফলে কোম্পানিটির কাছে অসহযোগিতার কারণ ব্যাখ্যা চেয়েছে বিএসইসি।

অ্যাক্টিভ ফাইন কেমিক্যালসের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের কাছে সম্প্রতি পাঠানো এক চিঠিতে বিএসইসি এ অসহযোগিতার কারণ তুলে ধরে ব্যাখ্যা চেয়েছে বলে জানা গেছে।

চিঠিতে উল্লেখ করা হয়, অ্যাকটিভ ফাইন কেমিক্যালসের ২০১৭, ২০১৮, ২০১৯ ও ২০২০ সালের ৩০ জুন সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক বিবরণীর ওপর একটি বিশেষ নিরীক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করতে হাওলাদার ইউনুস অ্যান্ড কোং চার্টার্ড অ্যাকাউন্ট্যান্টকে নিয়োগ দেয় বিএসইসি। এর ধরাবাহিকতায় গত ১ নভেম্বর বিশেষ নিরীক্ষক প্রতিষ্ঠানটি অ্যাকটিভ ফাইনের নিরীক্ষা কার্যক্রমের অবস্থা সম্পর্কে জানাতে কমিশনের কাছে চিঠি পাঠিয়েছে।

চিঠিতে নিরীক্ষক উল্লেখ রয়েছে, বিশেষ নিরীক্ষা কার্যক্রম পিছিয়ে দেওয়ার বিষয়ে বিএসইসির কাছে অ্যাকটিভ ফাইন কেমিক্যালস চিঠি দিয়েছে। আর কোম্পানিটি ওই চিঠির ওপর ভিত্তি করে বিএসইসির জারি করা চিঠি অনুযায়ী হাওলাদার ইউনুস অ্যান্ড কোং চার্টার্ড অ্যাকাউন্ট্যান্টকে বিশেষ নিরীক্ষা কার্যক্রম শুরু করতে সহযোগিতা করা হয়নি।

চিঠিতে আরও উল্লেখ রয়েছে, এ পরিস্থিতিতে অ্যাক্টিভ ফাইন কেমিক্যালসের পক্ষ থেকে এ ধরনের অসহযোগিতার বিষয়ে ব্যাখ্যা প্রদান করার জন্য নির্দেশ দেওয়া হলো। কারণ কমিশন থেকে বিশেষ নিরীক্ষা কার্যক্রম বিলম্বের বিষয়ে ধরনের কোনো অনুমোদন প্রদান করা হয়নি। এই ধরনের অসহযোগিতার জন্য অ্যাক্টিভ ফাইন কেমিক্যালসের বিরুদ্ধে বিএসইসি থেকে কেন যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবেনা, তা চিঠি পাওয়ার ৩ দিনের মধ্যে জানাতে নির্দেশ দেওয়া হলো।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, বিএসইসির ৭৯০তম কমিশন সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, বিনিয়োগকারীদের স্বার্থ রক্ষায় জরুরি পরিস্থিতি বিবেচনায় এবং সর্বনিম্ন দরদাতা হাওলাদার ইউনুস অ্যান্ড কোং চার্টার্ড অ্যাকাউন্টেন্টকে ৮ লাখ টাকায় অ্যাক্টিভ ফাইন কেমিক্যালসের নিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন বিশেষ নিরীক্ষা কার্যক্রম পরিচালনার জন্য নিয়োগের সিদ্ধান্ত হয়। বিশেষ নিরীক্ষা কার্যক্রমে নয়টি বিষয়ের ওপর গুরুত্ব দেওয়ার জন্য নির্দেশ দেওয়া হয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে অ্যাক্টিভ ফাইন কেমিক্যালসের কোম্পানি সচিব মো. মাহবুবুর রহমান বলেন, বিএসইসির কাছে বিশেষ নিরীক্ষা কার্যক্রম পরিচালনার বিষয়ে আমরা সময় বাড়ানোর জন্য আবেদন জানিয়েছি। তবে এই বিষয়ে বিএসইসির কাছ থেকে আমরা এখনও চিঠি পাইনি। আর বিএসইসি যে ব্যাখা চেয়েছে, সে চিঠিও আমার হাতে এখনও আসেনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here