ট্রিপল `এ’ ওয়ালটন

0
503

স্টাফ রিপোর্টার : ট্রিপল `এ’ হলো কোনো প্রতিষ্ঠানের ক্রেডিটের সর্বোচ্চ রেটিং, যা সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের আর্থিক অঙ্গীকার পূরণের সর্বোচ্চ সক্ষমতাসহ ব্যবসায়িক ও আর্থিক লেনদেনে সবচেয়ে কম ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে নির্দেশ করে।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের তথ্যমতে, ইমার্জিং ক্রেডিট রেটিং লিমিটেডের (ইসিআরএল) কাছ থেকে দীর্ঘমেয়াদে ‘ট্রিপল এ’ রেটিং এবং স্বল্পমেয়াদে ‘এসটি-১’ রেটিং পেয়েছে ওয়ালটন হাই-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড।

ওয়ালটনের ২০২০ সালের ৩০ জুন পর্যন্ত নিরীক্ষিত ও চলতি অর্থবছরের ১ জুলাই থেকে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত প্রথম ত্রৈমাসিকের অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন এবং অন্যান্য তথ্য বিবরণী পর্যালোচনার ভিত্তিতে এই ক্রেডিট রেটিং দেওয়া হয়।

এ প্রসঙ্গে ওয়ালটন হাই-টেক ইন্ডাস্ট্রিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রকৌশলী গোলাম মুর্শেদ বলেন, টানা ৫ বছর সর্বোচ্চ ক্রেডিটে রেটিং ‘ট্রিপল এ’ পাওয়া সত্যিই এক বিশাল অর্জন। এটা সম্ভব হয়েছে ওয়ালটনের অভিজ্ঞ পরিচালনা পর্ষদ, আধুনিক ও বিজ্ঞানসম্মত পরিচালন পদ্ধতি, বিশ্বমানের করপোরেট কালচার, মানসম্মত পণ্য উৎপাদন ও সেবা ব্যবস্থাপনা, শক্তিশালী প্রতিযোগিতামূলক অবস্থান, সর্বোচ্চ মানের মূলধন ব্যবস্থাপনা, আর্থিক অঙ্গীকার পূরণের সক্ষমতা ও শক্তিশালী তারল্য অবস্থানের কারণেই। ওয়ালটনের এই কৃতিত্বের অংশীদার দেশের সব ক্রেতা এবং শুভাকাঙ্খীরা। তারা ওয়ালটন পণ্যের প্রতি আস্থা রাখছেন বলেই দেশ-বিদেশে একের পর এক সাফল্যের মাইলফলক অর্জন সম্ভব হচ্ছে।

জানা গেছে, ২০১৫-১৬ থেকে শুরু করে সর্বশেষ অর্থবছর ২০১৯-২০ পর্যন্ত টানা ৫ বছর ধরে সর্বোচ্চ ক্রেডিট রেটিং অর্জন করেছে ওয়ালটন।

উল্লেখ্য, ওয়ালটন হাই-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেড প্রাথমিক গণপ্রস্তাব বা আইপিও’র মাধ্যমে পুঁজিবাজার ইতিহাসে সর্বোচ্চ ইপিএস নিয়ে তালিকাভুক্ত কোম্পানি। দেশে সর্বপ্রথম ডাচ পদ্ধতিতে প্রাতিষ্ঠানিক যোগ্য বিনিয়োগকারীদের অংশগ্রহণে বিডিংয়ের মাধ্যমে নির্ধারিত ওয়ালটনের প্রতিটি শেয়ারের কাট-অফ প্রাইস ৩১৫ টাকা নির্ধারণ করা হয়।

তবে, আইপিওতে সাধারণ বিনিয়োগকীদের কাছে কাট-অব প্রাইসের চেয়ে ২০ শতাংশ কমে অর্থাৎ ২৫২ টাকায় শেয়ার ইস্যু করে ওয়ালটন। চলতি বছরের ২৩ সেপ্টেম্বর দেশের দুই পুঁজিবাজার ঢাকা ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে ওয়ালটনের শেয়ার লেনদেন শুরু হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here