চলতি সপ্তাহে ৯টি প্রতিষ্ঠানের এজিএম

0
815

স্টাফ রিপোর্টার : পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত নয় কোম্পানির বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) চলতি সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হবে। কোম্পানিগুলো হচ্ছে- ম্যারিকো বাংলাদেশ লিমিটেড, রিপাবলিক ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড, ইউনিয়ন ক্যাপিটাল লিমিটেড, জনতা ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি লিমিটেড, স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেড, ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড, সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড, ঢাকা ডায়িং, তাকাফুল ইন্স্যুরেন্স লিমিটেড।

ম্যারিকো বাংলাদেশ লিমিটেডের এজিএম ২৬ জুলাই সকাল ১০টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মের মাধ্যমে আহ্বান করা হয়েছে। ম্যারিকো বাংলাদেশ লিমিটেড ৩১ মার্চ সমাপ্ত ২০২১ হিসাব বছরে বিনিয়োগকারীদের জন্য ২০০ শতাংশ চূড়ান্ত নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে। এর আগে কোম্পানিটি বিনিয়োগকারীদের ৭০০ শতাংশ অন্তর্বর্তী নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল। সব মিলিয়ে আলোচ্য হিসাব বছরে কোম্পানিটি বিনিয়োগকারীদের জন্য ৯০০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে।

আলোচ্য হিসাব বছরে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৯৮ টাকা ৬৯ পয়সা। যেখানে এর আগের হিসাব বছরে ইপিএস ছিল ৮৪ টাকা ১ পয়সা। এ বছরের ৩১ মার্চ শেষে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদমূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ৫১ টাকা ৯৫ পয়সা।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সোমবার কোম্পানিটির শেয়ারের সর্বশেষ ও সমাপনী দর ছিল ২ হাজার ৩৮৮ টাকা ও ২ হাজার ৩৯১ টাকা ৯০ পয়সা। গত এক বছরে কোম্পানি শেয়ারটির দর ১ হাজার ৫৬২ টাকা ৫০ পয়সা থেকে ২ হাজার ৪৭২ টাকা ২০ পয়সার মধ্যে ওঠানামা করেছে।

রিপাবলিক ইন্স্যুরেন্সের এজিএম ২৭ জুলাই বেলা ১১টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মের মাধ্যমে আহ্বান করা হয়েছে। ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হওয়া ২০২০ হিসাব বছরে শেয়ারহোল্ডারদের জন্য মোট ১৪ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে কোম্পানিটি। এর মধ্যে ৭ শতাংশ নগদ ও ৭ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ।

সমাপ্ত হিসাব বছরে কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ২ টাকা ৩৬ পয়সা। যা আগের বছর একই সময়ে ছিল ১ টাকা ৮৯ পয়সা (রিস্টেটেড)। ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ শেষে কোম্পানিটির এনএভিপিএস দাঁড়িয়েছে ১৬ টাকা ১৮ পয়সা।

ইউনিয়ন ক্যাপিটালের এজিএম ২৮ জুলাই বেলা ১১টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মের মাধ্যমে আহ্বান করা হয়েছে। ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ সমাপ্ত হিসাব বছরে শেয়ারহোল্ডারদের কোনো লভ্যাংশ না দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কোম্পানিটি।

সমাপ্ত হিসাব বছরে এর শেয়ারপ্রতি সমন্বিত লোকসান হয়েছে ৩ টাকা ৮ পয়সা, যা আগের বছরে ছিল ৬ টাকা ১৩ পয়সা। ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ শেষে কোম্পানিটির সমন্বিত এনএভিপিএস দাঁড়িয়েছে ৪ টাকা ১২ পয়সা।

জনতা ইন্স্যুরেন্সের এজিএম ২৯ জুলাই বেলা ১১টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মে আহ্বান করা হয়েছে। সর্বশেষ ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত ২০২০ হিসাব বছরে বিনিয়োগকারীদের জন্য ১১ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে কোম্পানিটির পর্ষদ। এর মধ্যে ৬ শতাংশ নগদ ও ৫ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ।

সর্বশেষ সমাপ্ত ২০২০ হিসাব বছরে কোম্পানিটির ইপিএস হয়েছে ১ টাকা ২৫ পয়সা। যেখানে এর আগের বছরে ইপিএস ছিল ১ টাকা ৮ পয়সা। ২০২০ সালের ৩১ ডিসেম্বর শেষে কোম্পানিটির এনএভিপিএস ছিল ১৪ টাকা ৪৫ পয়সায়।

স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের এজিএম ২৯ জুলাই বেলা ১১টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মে অনুষ্ঠিত হবে। ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত ২০২০ হিসাব বছরে শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ৫ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করে ব্যাংকটি। এর মধ্যে ২ দশমিক ৫০ শতাংশ নগদ ও ২ দশমিক ৫০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ।

ইস্টার্ন ইন্স্যুরেন্সের এজিএম ২৯ জুলাই বেলা সাড়ে ১১টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মে অনুষ্ঠিত হবে। ৩১ ডিসেম্বর ২০২০ শেষে কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ২০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে।

সেন্ট্রাল ইন্স্যুরেন্সের এজিএম ২৯ জুলাই বেলা ১১টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মে অনুষ্ঠিত হবে। ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হওয়া ২০২০ হিসাব বছরে শেয়ারহোল্ডারদের জন্য সাড়ে ১৩ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে কোম্পানিটি। এর মধ্যে ৬ শতাংশ নগদ আর ৭ দশমিক ৫০ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ।

ঢাকা ডায়িংয়ের এজিএম ৩০ জুলাই সকাল ১০টায়, বোলা ১১টায় ও দুপুর ১২টায় তিন হিসাব বছরের সভা অনুষ্ঠিত হবে। গত ৩০ জুন ২০২০ হিসাব বছরের কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ১ শতাংশ লভ্যাংশ ঘোষণা করে এবং ২০১৮ ও ২০১৯ হিসাব বছরে লভ্যাংশ না দেয়ার সিদ্ধান্ত নেয়।

তাকাফুল ইন্স্যুরেন্সের এজিএম ৩১ জুলাই বেলা ১১টায় ডিজিটাল প্লাটফর্মে অনুষ্ঠিত হবে। ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হওয়া ২০২০ হিসাব বছরে শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ১০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে কোম্পানিটি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here