অবশেষে রিং শাইনের বাণিজ্যিক উৎপাদন শুরু

0
2639

সিনিয়র রিপোর্টার : রিং শাইন টেক্সটাইল লিমিটেড উৎপাদনে ফিরেছে। দীর্ঘ সময়ে পরে কোম্পানির কর্তৃপক্ষ প্রায় ১০ শতাংশ বণিজ্যিক উৎপাদন দিয়ে অগ্রযাত্রা অব্যহত রাখছে। কোম্পানির উৎপাদনে ফেরার খবরে ক্রেতার চাপে রোববার কোম্পানির শেয়ারপ্রতি দর ৮.৫১ শতাংশ বেড়ে ৫.১০ টাকায় বিক্রেতা সংকট পড়ে।

রোববার সাড়ে ১১টা দিকে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) শেয়ারপ্রতি দর ছিল ৫.১০ টাকা।

বণিজ্যিক উৎপাদন সম্পর্কে রোববার সকালে কোম্পানির শীর্ষ এক কর্মকর্তা বলেন, আমাদের উৎপাদন আপাতত ১০ শতাংশ চালু করা হয়েছে। মূলত আমাদের উৎপাদন কখনোই বন্ধ ছিল না, যদিও পরিমাণে খুবই কমছিল। তবে তা বড়িয়ে আপাতত ১০ শতংশ করা হয়েছে।

রোববার সকালে ডিএসইতে শেয়ারের বিক্রেতা সংকট চিত্র

নাম প্রকাশ না করার অনুরোধে তিনি আরো বলেন, পবিত্র ঈদুল ফিতরের পরে উৎপাদন ৪০ থেকে ৪৫ শতাংশে নেয়া হবে। ইতোমধ্যে উৎপাদনের কাঁচামাল আনতে এলসি এবং কারখানা প্রস্তুত করা হয়েছে।

বাংলাদেশের পুঁজিবাজারে বস্ত্র খাতে তালিকাভুক্ত রিং শাইন টেক্সটাইলের কারখানা ২০২০ সালে সেপ্টেম্বর মাসে একমাসের জন্য বন্ধ ঘোষণা করে। রিং শাইন টেক্সটাইল কর্তৃপক্ষ জানায়, করোনা ভাইরাসের কারণে দেশের বাইরে থেকে তেমন কোনো কাজ আসছে না। আর যে কাজ পাওয়া যাচ্ছে তা তৈরি করার জন্য কাঁচামাল পাওয়া যাচ্ছে না।

তাই ইপিজেড শ্রমিক আইনের ১১ ধারা অনুয়ায়ী কারাখানা বন্ধ করা হবে। দীর্ঘ সময়ে চালু করতে না পারলেও সম্প্রতি ১০ শতাংশ বাণিজ্যিক উৎপাদনে ফেরে।

কোম্পানির পরিশোধিত মূলধন ৫০০ কোটি ৩১ লাখ টাকা; রিজার্ভের পরিমাণ ২০৮ কোটি ৭৯ লাখ টাকা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here