free hit counters

সদ্য সংবাদ

মূল্য সংবেদনশীল তথ্য

সম্পাদকীয় নির্বাচন

সুদহার কমানো যায়নি, উল্টো বেড়েছে

সিনিয়র রিপোর্টার : ব্যাংক ঋণের উচ্চ সুদকে বাংলাদেশে বিনিয়োগের বড় বাধা মনে করা হয়। বেশি সুদে টাকা নিয়ে ব্যবসায় টিকে থাকা কঠিন বলে আসছেন...

নয় বছরের আর্থিক প্রণোদনা-নীতি সহায়তাও বিফল

সিনিয়র রিপোর্টার : শেয়ারবাজার যেন গলার কাঁটা সরকারের জন্য। ২০১০ সালের ডিসেম্বরে ধস নামার পর বাজার স্বাভাবিক ধারায় আনতে নয় বছর ধরে চেষ্টা চলছে। দেওয়া...

শীর্ষ ঋণ খেলাপি ৪টি কোম্পানির কমেছে দায়

সিনিয়র রিপোর্টার : দশম জাতীয় সংসদে ২০১৮ সালে দেশের শীর্ষ ১০০ ঋণ খেলাপি প্রতিষ্ঠান ও ব্যক্তির নাম প্রকাশ করা হয়। শীর্ষ ঋণ খেলাপির তালিকায়...

সংকট কাটিয়ে ফরচুন সুজ সম্ভাবনার পথে

শাহীনুর ইসলাম : আর্থিক সংকট কাটিয়ে উঠেছে ফরচুন সুজ লিমিটেড। চলতি বছরের জুলাই মাসে ৪০ লাখ ডলারের জুতা রপ্তানি আগামী অক্টোবর মাসে শেষ হচ্ছে।...

সাক্ষাৎকার

‘দেশে এলপিজিকে ছড়িয়ে দিতে চাই’

দেশের অন্যতম শীর্ষস্থানীয় কনগ্লোমারেট ইস্ট কোস্ট গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের দায়িত্বে আছেন তানজিল চৌধুরী, এমজেএল বাংলাদেশ ও ওমেরা পেট্রোলিয়ামের পরিচালক হিসেবেও দায়িত্ব পালন করছেন।পাশাপাশি তিনি প্রাইম এক্সচেঞ্জ সিঙ্গাপুরেরও চেয়ারম্যান। ইউনিভার্সিটি অব ওয়েস্ট লন্ডন থেকে অ্যাকাউন্টিং অ্যান্ড ফিন্যান্সে স্নাতক ও ইউনিভার্সিটি অব লন্ডনের কিংস কলেজ থেকে ইন্টারন্যাশনাল ম্যানেজমেন্টে স্নাতকোত্তর করেন। দেশের পুঁজিবাজারের সঙ্গেও সম্পৃক্ত।তিনি দেশের অন্যতম মার্চেন্ট ব্যাংক ইসি সিকিউরিটিজের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও)। ২০১৪-১৫ মেয়াদে তিনি বাংলাদেশ মার্চেন্টস ব্যাংকার্স অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমবিএ) প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্বপালন করেছেন। ব্যবসায়ীর পাশাপাশি তিনি ক্রীড়া সংগঠকও। তিনি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) পরিচালক ও বয়সভিত্তিক টুর্নামেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান।দেশের অর্থনীতি, ব্যবসা-বাণিজ্য, পুঁজিবাজার ও ইস্ট কোস্ট গ্রুপের বিভিন্ন দিক নিয়ে সাক্ষাৎকার নিয়েছেন -মেহেদী হাসান রাহাত দেশের সার্বিক অর্থনীতি সম্পর্কে আপনার মূল্যায়ন জানতে চাই? আমাদের বর্তমানে সাড়ে ৮ শতাংশ হারে যে জিডিপি প্রবৃদ্ধি হচ্ছে, সেটি অত্যন্ত ইতিবাচক।এমনকি বিশ্বের ইমার্জিং ইকোনমিগুলোর মধ্যে বাংলাদেশ হচ্ছে বিগেস্ট মুভার। কিছুদিন আগে এইচএসবিসির একজন গ্লোবাল ইকোনমিস্ট দেশের কয়েকজন মিলিয়নেয়ার অন্ট্রাপ্রেনারদের সঙ্গে মিট করেছিলেন। তিনিও একই কথা বলেছেন যে, বিভিন্ন অর্থনৈতিক নির্দেশকে যে প্রবৃদ্ধি দেখা যাচ্ছে তাতে ২০৪০ সালের মধ্যে বাংলাদেশই হবে বিগেস্ট মুভার। তবে এর মধ্যেও একটি শঙ্কার দিক রয়েছে। সেটি হচ্ছে আমাদের বর্তমানে যে প্রবৃদ্ধি হচ্ছে তার কত শতাংশ সরকারি খাতের অর্থায়নের কারণে হচ্ছে, সেটিদেখতে হবে। আমি মনে করি, সরকারের কাজ হচ্ছে পলিসি সাপোর্ট দেয়া, বিভিন্ন ধরনের আইন-কানুন তৈরি করা এবং সেগুলো সঠিকভাবে মানা হচ্ছে কিনা সেটি নিশ্চিত করা। সর্বোপরি সরকারের কাজ হচ্ছে রেগুলেট করা। মুক্তবাজার অর্থনীতিতে অবকাঠামো খাতে সরকারের অর্থায়ন করা ঠিক নয়।   এতে সরকারের ঝুঁকি বেড়ে যায়।এটি বেসরকারি খাতের কাছে ছেড়ে দেয়া উচিত। আর আমাদের দেশের বেসরকারি খাতের কিন্তু সে ধরনের সক্ষমতা রয়েছে এবং তারা এটি প্রমাণ করেছে। দেশে বর্তমানে যে শিল্পায়ন হচ্ছে, তাতে এনার্জির বড় ধরনের প্রভাব রয়েছে। গ্লোবাল মার্কেটের সঙ্গে কমপিট করতে হলে আমাদের এনার্জি কস্ট আরো কমিয়ে আনতে হবে।সরকার রূপপুরে যে পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপন করছে, সেটি অত্যন্ত দুঃসাহসী একটি পদক্ষেপ।আমাদের সাইজের অনেক ইকোনমিই এ ধরনের প্রকল্প করার সাহস করবে না। দেশের ব্যাংকিং খাতের সার্বিক অবস্থা কেমন? আমাদের এখানে ব্যাংকের সংখ্যা অনেক বেশি হয়েছে,ফলে যখন একটি খারাপ ক্লায়েন্টকে কোনো একটি ব্যাংক না করে দেয়, তখন দেখা যায় যে আরেকটি ব্যাংক তাকে ঋণ দিচ্ছে। এনপিএল ব্যাংকের জন্য এটি একটি রিয়াল চ্যালেঞ্জ। এক্ষেত্রে ইচ্ছাকৃত ঋণখেলাপি যারা রয়েছে, তাদের শাস্তির আওতায় আনা এবং সম্পদ জব্দ করা দরকার। ব্যাংককে টাকা না দিয়ে যারা বিলাসী জীবনযাপন করছে, তাদের জেলে দিতে হবে।পাশাপাশি যাদের ব্যবসা খারাপ হওয়ার কারণে খেলাপি হয়েছে, তাদের দিকটি অন্যভাবে দেখা উচিত।সার্বিকভাবে ব্যাংকগুলোকে তাদের বিজনেস পোর্টফোলিওকে পুনর্বিন্যাস এবং আইটি ও টেকনোলজি আপগ্রেডেশনে গুরুত্ব দিতে হবে। পুঁজিবাজারে ক্রান্তিকাল চলছে। তাহলে অর্থায়ন আসবে কীভাবে? আমাদের এখানে অনেকগুলো ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের অবস্থা ভালো নয়।আমাদের এখানে এতগুলো ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের প্রয়োজন রয়েছে কিনা সেটিও দেখতে হবে।অন্যদিকে পুঁজিবাজার একটি ক্রান্তিকালের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। আপনারা জানেন, কিছুদিন আগে আমাদের গ্রুপের কোম্পানি ওমেরা পেট্রোলিয়াম পুঁজিবাজারে আসার জন্য রোড শো করেছে। এ ধরনের কোম্পানি পুঁজিবাজারে এলে আমি মনে করি অন্যান্য ফান্ডামেন্টাল যেসব কোম্পানি রয়েছে তারাও পুঁজিবাজারে আসতে উৎসাহিত হবে। আর্থিক খাতের সংকটের কারণে কিন্তু বাইরের কিছু ঋণদাতা প্রতিষ্ঠান আমাদের এখানে সুযোগ পেয়ে যাচ্ছে।যেমন ডিএফআইডি, আইএফসির মতো প্রতিষ্ঠানগুলো আগে বাংলাদেশে খুব বেশি ঋণ দিত না।কিন্তু এখন তারা স্থানীয় বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে বড় আকারে অর্থায়ন করছে। অথচ পুঁজিবাজার থেকে অর্থায়ন করা হলে কিন্তু কোম্পানির জন্যই ভালো। উদ্যোক্তারা প্রায়ই অভিযোগ করে থাকেন যে পুঁজিবাজারে আসতে অনেক বেশি সময় লাগে... বিশ্বের আর কোথাও আমাদের দেশের মতো পুঁজিবাজারে আসতে এত দীর্ঘ সময় লাগে না।এক্ষেত্রে নিয়ন্ত্রক সংস্থাকে তালিকাভুক্তির প্রক্রিয়াকে সহজ করতে হবে। আপনার যা যা চেক করা প্রয়োজন করেন কিন্তু সেটি যাতে দ্রুত হয়। দুটি কারণে একটি কোম্পানি পুঁজিবাজারে আসে। একটি...

‘বিএসইসিকে ভেঙে নতুন করে ঢেলে সাজাতে হবে’

সিনিয়র রিপোর্টার : শেয়ারবাজারের ওপর বিনিয়োগকারীদের আস্থা ফেরাতে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনকে (বিএসইসি) ভেঙে দেওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের সাবেক ডেপুটি গভর্নর...

ডিএসই সংবাদ

অথনীতি

আয়কর মেলায় ২৬১৩ কোটি টাকা রাজস্ব আহরণ

সিনিয়র রিপোর্টার : করদাতাদের স্বতস্ফুর্ত অংশগ্রহণে শেষ হলো জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) সপ্তাহব্যাপী আয়োজন আয়কর মেলা। দলে দলে করদাতারা রিটার্ন দাখিল করেছেন মেলায়। কোন...

বাজার প্রতিদিন

মঙ্গলবার হল্টেড অ্যাক্টিভ ফাইন

স্টাফ রিপোর্টার : ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) মঙ্গলবার লেনদেনের দেড় ঘণ্টার মধ্যে বিক্রেতা উধাও হয়েছে অ্যাক্টিভ ফাইন কেমিক্যালস লিমিটেডের শেয়ারে। এতে কোম্পানিটির শেয়ার হল্টেড...

এজিএম/ইজিএম

কোম্পানী সংবাদ

৫০০ কোটি টাকার বন্ড ইস্যু করবে স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক

স্টাফ রিপোর্টার  মূলধন ভিত্তি শক্তিশালী করতে ও ব্যবসা সম্প্রসারণে ৫০০ কোটি টাকার বেমেয়াদি বন্ড ইস্যুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক লিমিটেডের পরিচালনা পর্ষদ। টিয়ার ওয়ান মূলধন বাড়াতে ও ব্যাসেল থ্রি কমপ্লায়েন্স প্রতিপালনে ব্যাংকটি নতুন করে বন্ড ইস্যুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। এর আগে গত সেপ্টেম্বরে ব্যাংকটির ৫০০ কোটি টাকার নন-কনভার্টিবল সাব-অর্ডিনেটেড বন্ড ইস্যুর প্রস্তাবে অনুমোদন দিয়েছে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন। বন্ডটি ইস্যুর মাধ্যমে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান থেকে অর্থ উত্তোলন করে স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংক তাদের টিয়ার-টু মূলধন ভিত্তি শক্তিশালী করবে। বন্ডটির প্রতি ইউনিটের অভিহিত মূল্য ১ কোটি টাকা। এর ম্যান্ডেটেড জয়েন্ট অ্যারেঞ্জার হিসেবে রয়েছে সিটি ব্যাংক ক্যাপিটাল রিসোর্সেস লিমিটেড ও এসবিএল ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট লিমিটেড। ট্রাস্টি হিসেবে কাজ করছে এমটিবি ক্যাপিটাল লিমিটেড। সর্বশেষ অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন অনুসারে, চলতি ২০১৯ হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে (জানুয়ারি-সেপ্টেম্বর) স্ট্যান্ডার্ড ব্যাংকের সম্মিলিত শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৪৫ পয়সা, যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল ১১ পয়সা। তৃতীয় প্রান্তিকে ব্যাংকটির সম্মিলিত ইপিএস হয়েছে ৩৬ পয়সা, যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল ২ পয়সা। ৩০ সেপ্টেম্বর ব্যাংকটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদমূল্য দাঁড়িয়েছে ১৫ টাকা ৮৭ পয়সা, যা আগের বছরের একই সময়ে ছিল ১৪ টাকা ৩০ পয়সা।

খাতওয়ারী সংবাদ

‘বেশি সুদের বৈদেশিক ঋণে ভারসাম্য রক্ষাই চ্যালেঞ্জ’

সিনিয়র রিপোর্টার : ২০২৪ সালে বাংলাদেশ স্বল্পোন্নত দেশের গণ্ডি পেরুলেই কমে যাবে কম সুদের ঋণ। সেই সঙ্গে অনুদান পাওয়ার পথ বন্ধ হয়ে যাবে। তখন বেশি...

টিউটোরিয়াল কর্নার

আন্তর্জাতিক বাজারে পণ্য বেচাকেনা, কম পুঁজিতে নতুন ব্যবসার পরিকল্পনা

ডেস্ক রিপোর্ট : বিশ্বায়নের যুগে ব্যবসা-বাণিজ্য আর ছোটখাটো অবস্থানে সীমাবদ্ধ নেই। অভ্যন্তরীণ গণ্ডি পেরিয়ে আন্তর্জাতিক বাজারে পণ্য বেচাকেনায় প্রতিযোগিতা শুরু হয়েছে। এ প্রতিযোগিতায় পিছিয়ে...

আই পি ও

আইপিও রিভিউ কমিটিতে থাকছে ৬ সদস্য, ইমন বাদ

স্টাফ রিপোর্টার : ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জর (ডিএসই) প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিও) রিভিউ কমিটির সদস্য থেকে মিনহাজ মান্নান ইমনকে বাদ দেওয়া হয়েছে। তার পরিবর্তে নতুন সদস্য হিসেবে...

অনুসন্ধানী রিপোর্ট

ঋণ না পেলে উড়বে না ইউনাইটেড এয়ার

স্টাফ রিপোর্টার : নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের (বেবিচক) সঙ্গে টানাপড়েনের কারণে প্রায় সাড়ে তিন বছর ধরে কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত একমাত্র...

ব্রোকারেজ হাউজ

এক্সুসিভ ভিডিও

স্ক্রীনার ব্যাবহার করে ডিরেক্টর শেয়ার হোল্ডিং খুঁজে বের করা [ ভিডিও]

স্টাফ রিপোর্টারঃ  স্ক্রীনার ব্যাবহার করে কোম্পানির ডিরেক্টর শেয়ার হোল্ডিং কীভাবে খুঁজে বের করা যায় এ নিয়ে মঙ্গলবার স্টক বাংলাদেশ লিমিটেড একটি ভিডিও টিউটরিয়াল প্রকাশ করে। স্ক্রীনার...