২৬ জুলাই নতুন মুদ্রানীতি ঘোষণার সম্ভাবনা

0
850

সিনিয়র রিপোর্টার : আগামী ডিসেম্বরে জাতীয় নির্বাচন হওয়ার কথা। নির্বাচনকে সামনে রেখে বাজারে টাকার প্রবাহ বাড়বে। বিশেষ করে প্রাতিষ্ঠানিক টাকার চেয়ে অপ্রাতিষ্ঠানিক বা কালো টাকার প্রবাহ বেশি হবে। এতে মূল্যস্ফীতির ওপর চাপ বাড়বে। আন্তর্জাতিক বাজারে জ্বালানি তেলসহ বিভিন্ন পণ্যের দাম বাড়ছে। এতেও মূল্যস্ফীতি চাপে পড়বে।

আমদানি ব্যয় বেড়ে যাওয়ার কারণে ব্যাংকগুলোতে ডলার সংকট রয়েছে। ব্যাংকগুলো আগ্রাসী ঋণ বিতরণ করায় ব্যাংকিং খাতে তারল্য সংকটও প্রকট। এ রকম নানামুখী সংকটের মধ্যে কেন্দ্রীয় ব্যাংক মুদ্রানীতি ঘোষণা করতে যাচ্ছে। যাতে মূল্যস্ফীতি নিয়ন্ত্রণ থাকবে প্রধান লক্ষ্য। সূত্র বলছে, সম্ভাব্য চলতি মাসের ২৬ জুলাই নতুন মুদ্রানীতি ঘোষণা করবে বাংলাদেশ ব্যাংক।

কেন্দ্রীয় ব্যাংক সূত্রে জানা গেছে, এবারও মুদ্রানীতির প্রধান লক্ষ্য থাকছে মূল্যস্ফীতির ওপর জোর দেয়া। তবে এবার যেহেতু বাজেটে সঞ্চয়পত্রের লক্ষ্যমাত্রা কমিয়ে সরকারি খাতের ব্যাংকঋণের লক্ষ্যমাত্রা বাড়ানো হচ্ছে, সেহেতু বেসরকারি খাতের ঋণের প্রবৃদ্ধির লাগাম টানতেই হবে বলে মনে করছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের কর্মকর্তারা।

তবে নির্বাচনের বছরে বেসরকারি খাতে বিনিয়োগ বাড়াতে সরকার যেখানে ঋণের সুদহার কমানোর উদ্যোগ নিয়েছে, সেখানে ঋণ প্রবৃদ্ধি কমিয়ে আনাটা সরকারের নীতির সঙ্গে সাংঘর্ষিক হবে বলেও মনে করছেন তাঁরা।

চলতি ২০১৮-১৯ অর্থবছরে অভ্যন্তরীণ উৎস থেকে ৭১ হাজার ২২৬ কোটি টাকা ঋণ গ্রহণের লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে সরকারের। এর মধ্যে ব্যাংকব্যবস্থা থেকে আসবে ৪২ হাজার ২৯ কোটি টাকা, যা বিদায়ী অর্থবছরের সংশোধিত বাজেটের লক্ষ্যমাত্রার দ্বিগুণেরও বেশি।

বিদায়ী অর্থবছরে মূল বাজেটে ব্যাংকব্যবস্থা থেকে সরকারের ঋণ নেয়ার লক্ষ্য ছিল ২৮ হাজার ২০৩ কোটি টাকা। কিন্তু ওই অর্থবছরে ব্যাংকবহির্ভূত উৎস থেকে (মূলত সঞ্চয়পত্র থেকে) বেশি ঋণ আসায় ব্যাংকব্যবস্থা থেকে লক্ষ্য অনুযায়ী ঋণ নিতে হয়নি সরকারকে। যেকারণে সংশোধিত বাজেটে ব্যাংকব্যবস্থা থেকে সরকারের নিট ঋণের লক্ষ্য কমিয়ে হয় ১৯ হাজার ৯১৭ কোটি টাকা। অ

ন্যদিকে চলতি অর্থবছরে ব্যাংকবহির্ভূত উৎস থেকে সরকারের ঋণ গ্রহণের লক্ষ্য কমিয়ে ২৯ হাজার ১৯৭ কোটি টাকা করা হয়েছে। এর মধ্যে সঞ্চয়পত্রসহ জাতীয় সঞ্চয় স্কিমগুলো থেকে ২৬ হাজার ১৭৯ কোটি টাকা নেওয়ার লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here