সিনিয়র রিপোর্টার : পুঁজিবাজারে কৌশলগত বিনিয়োগকারী হিসেবে নিয়োগ পাওয়া দুই চীনা প্রতিষ্ঠানের ৯৪৬ কোটি টাকা আসছে (আজ) সোমবার। ইতোমধ্যে পুঁজিবাজারে টাকা আনার সব ধরনের কার্যক্রম সম্পন্ন হয়েছে। বাজার স্থিতিশীল রাখতে এই টাকা বিশেষ ভূমিকা রাখবে বলে পুঁজিবাজার সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন।

সর্বশেষ ধাপ হিসেবে রোববার জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন চীনা ফান্ডের প্রজ্ঞাপনে স্বাক্ষর করেছেন। ফলে চীনা কনসোর্টিয়ামের টাকা পুঁজিবাজারে আসতে আর কোনো বাধা রইল না।

জানা গেছে, ডিএসই থেকে হাউস মালিকদের এ ব্যাপারে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। এরই মধ্যে অনেক হাউস এই অর্থ বিনিয়োগের জন্য বিও অ্যাকাউন্ট খুলেছে।

সূত্র আরো জানিয়েছে, এনবিআর চেয়ারম্যান বিদেশে থাকায় চীনা জোটের এই অর্থ পুঁজিবাজারে আসতে একটু দেরি হয়েছে। চীনা এই অর্থ বিনিয়োগের জন্য ব্রোকারেজ হাউসগুলো সময় পাচ্ছেন ৬ মাস। এই সময়ের মধ্যে ফান্ড থেকে প্রাপ্ত অর্থ পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ করতে হবে।

ডিএসই সূত্র জানিয়েছে, আজ থেকে চীনা কনসোর্টয়ামের টাকা আসবে, যা পুঁজিবাজারকে স্থিতিশীল রাখতে ভূমিকা রাখবে। চীনা জোটের পাশাপাশি আইসিবির অর্থও বাজারে আসছে। এটা অবশ্যই পুঁজিবাজারের জন্য ইতিবাচক। ডিএসই আরো জানিয়েছে এই অর্থ বিনিয়োগে কোনো বাধ্যবাধকতা নেই।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের ১৪ মে কৌশলগত বিনিয়োগকারী হিসেবে চীনা কনসোর্টিয়ামের সঙ্গে চুক্তি স্বাক্ষর করে ডিএসই। চুক্তি অনুযায়ী, প্রতিষ্ঠান দুটি ডিএসইর ২৫ শতাংশ বা ৪৫ কোটি ৯ লাখ ৪৪ হাজার ১২৫টি শেয়ার কেনে এবং প্রতিটি শেয়ারের বিপরীতে ২১ টাকা দরে মোট ৯৪৬ কোটি ৯৮ লাখ টাকা পরিশোধ করে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here