ডেস্ক রিপোর্টঃ আন্তর্জাতিক সিমেন্ট শিল্পের বাজারে বাংলাদেশ ৪০তম অবস্থানে রয়েছে বলে জানিয়েছেন মেঘনা সিমেন্ট মিলস লিমিটেডের বিকল্প পরিচালক এ আর রশিদী। গেল মঙ্গলবার (২০ ডিসেম্বর) রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি, বসুন্ধরায় (আইসিসি,বি) মেঘনা মিলস লিমিটেডের ২৪তম বার্ষিক সাধারণ সভায় এসব তথ্য উঠে আসে।বেলা এগারটায় শুরু হওয়া সাধারণ সভায় সভাপতিত্ব করেন এ আর রশিদী।

সভায় এ আর রশিদী বলেন, ‘সিমেন্ট শিল্পে বাংলাদেশ দিন দিন এগিয়ে যাচ্ছে। বর্তমানে সিমেন্টের আন্তর্জাতিক বাজারে বাংলাদেশের অবস্থান ৪০তম। নানা অনিশ্চয়তা ও বাধা থাকার পরও আমরা বাজার ধরে রাখার চেষ্টা করছি। সিমেন্টের ক্রমবর্ধমান দেশীয় চাহিদা পূরণের লক্ষ্যে বার্ষিক সিমেন্ট উৎপাদনের সক্ষমতা বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে মেঘনা সিমেন্ট মিলস লিমিটেড। আর সে উদ্দেশ্যে ২৪৪ কোটি ৭৯ লাখ টাকা ব্যয়ে উন্নত মেশিনারিজ কেনা হচ্ছে’।

এ আর রশিদী আরো বলেন, ‘সিমেন্টের দেশীয় বার্ষিক চাহিদার তুলনায় দেশের সম্মিলিত উৎপাদনের সক্ষমতা অনেক বেশি। তবে দেশের ভোক্তাপ্রতি সিমেন্ট ব্যবহারের হার বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় অত্যন্ত কম। অধিক উৎপাদনশীলতা ও বিরাজমান অর্থনৈতিক অবস্থার কারণে আমাদের কঠিন পরিস্থিতির মধ্য দিয়ে যেতে হচ্ছে’।

সভায় উপস্থিত ছিলেন উদ্যোক্তা পরিচালক খাঁজা আহমেদুর রহমান এবং কোম্পানির পরিচালকমণ্ডলীর পক্ষে ময়নাল হোসেন চৌধুরী, মেজর জেনারেল (অব.) আবু হায়দার খান, আবু তৈয়ব প্রমুখ।

উল্লেখ্য, মেঘনা মিলস লিমিটেডের ২৪তম বার্ষিক সাধারণ সভায় ২০১৫ সালের ১ জানুয়ারি থেকে ২০১৬ সালের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত ১৮ মাসের জন্য ১৫ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here