বিনিয়োগকারীদের ক্ষোভে শেষ হলো এজিএম

0
1616

স্টাফ রিপোর্টার : কে এন্ড কিউ লিমিটেডের ৩১তম বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) বিনিয়োগকারীদের ক্ষোভের মধ্য দিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। ডিভিডেন্ড না পাওয়ায় বিনিয়োগকারীরা এ ক্ষোভ প্রকাশ করেন। রাজধানীর কারওয়ানবাজারের সিআর দত্ত রোডের হোটেল সুন্দরবনে রোববার সকালে এ সভার আয়োজন করা হয়।

কে এন্ড কিউ ২০১৪ সালের ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত অর্থবছরেও বরাবরের মতো বিনিয়োগকারীদের জন্য কোন লভ্যাংশ ঘোষণা করেনি। ২০১২ থেকে ২০১৪ পর্যন্ত ৩ বছর ধরে লভ্যাংশ দেয়না প্রকৌশল খাতের কোম্পানিটি। লভ্যাংশ না পাওয়ায় বিনিয়োগকারীদের অনেকেই অসন্তোষ প্রকাশ করেন। ক্ষোভ মিশ্রিত কন্ঠে তারা বলেন, কোন কোম্পানি ডিভিডেন্ড না দিলে সামাজিক মর্যাদা হারায়। পুঁজিবাজার, ব্যাংক, আন্তর্জাতিক পর্যায় থেকে শুরু করে কোথাও মর্যাদা থাকেনা।

DSC02600

তারা আরো বলেন, কোম্পানির চেয়ারম্যান একজন অত্যন্ত ভাল মানুষ। সর্বজন শ্রদ্ধেয়। কিন্তু, কোম্পানিতে কিছু কর্তা-ব্যক্তি রয়েছে, -যারা সাধারণ বিনিয়োগকারীদের কথায় কর্ণপাত করেননা। এমনকি, ফোন দিলেও রেসপন্স করেননা। এদের কারণে কোম্পানি সম্পর্কে বিনিয়োগকারীরা ভুল বোঝে, দূরত্ব সৃষ্টি হয়। এতে চেয়ারম্যানের সুনাম ক্ষুন্ন হয়। আমরা এসব কর্মকর্তার অপসারণ চাই।

বিনিয়োগকারীরা বলেন, কোম্পানিতে বর্তমানে ৩ হাজার ৩ শত ৮৩ জন বিনিয়োগকারী রয়েছে। ডিভিডেন্ড না পাওয়ায় সকলেই বঞ্চিত হয়েছে। কোম্পানির ম্যানেজিং ডিরেক্টর মি. তাবিথ এম. আউয়াল এজিএমে উপস্থিত না থাকাতেও ক্ষোভ প্রকাশ করেন শেয়ারহোল্ডারদের কেউ কেউ।

সভায় কোম্পানির চেয়ারম্যান মি. আব্দুল আউয়াল মিন্টু বিনিয়োগকারীদের দাবী বিবেচনার আশ্বাস দেন।

চেয়ারম্যানের সভাপতিত্বে সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন পরিচালনা পর্ষদের সদস্য, কোম্পানির সচিব ও সাধারণ বিনিয়োগকারী। সমাপ্ত অর্থবছরের আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা পূর্বক সভায় উত্থাপিত এজেন্ডার অনুমোদন নেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য, ‘জেড’ ক্যাটাগরির এ কোম্পানি ১৯৯৬ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভূক্ত হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here