স্টাফ রিপোর্টারঃ আজ বৃহস্পতিবার , ৭ই ডিসেম্বর, ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ সুচকে বেয়ারিশ ক্যান্ডেল দেখা যায়। সকাল থেকে প্রথম কিছুক্ষণ ইনডেস্কের মান ঊর্ধ্বমুখী থাকলেও পরবর্তীতে সেল পেশার লক্ষ্য করা যায়। আজ প্রথম থেকেই বাজারে সেল পেশার বাড়তে দেখা যায়। যে কারনে ইনডেস্কের মান ক্রমাগত হারে পড়তে থাকে। দিনের শেষ ভাগে বাজারে ভলিওম বাড়লেও ইনডেস্কের মান বাড়তে পারেনি।

টেকনিক্যাল অ্যানালাইসিস অনুযায়ী, ডিএসইএক্স শক্তিশালী সাপোর্ট লাইনের উপর সাইড ওয়ার্কে থেকে আজ ব্রেক ডাউনের চেষ্টা করে। দিন শেষে ইনডেস্কে বেয়ারিশ ক্যান্ডেলে হলে এখন ইনডেস্কের মান ব্রেক ডাইনে অবস্থান করছে। তবে সাপোর্ট ও ট্রেন্ড লাইনের মাঝে অবস্থান করায় এখনও ডাউন ট্রেন্ড থেকে বেক করার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে সামনের দিনগুলোতে অর্থাৎ আগামী সপ্তাহে বড় রকম বাই পেশারে বাজারে না আসলে ইনডেস্ক লং টাইমের জন্য আবারও ডাউন ট্রেন্ডে চলে যেতে পারে।

বৃহস্পতিবার ডিএসইতে ৫১৭ কোটি ১২ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। যা আগের দিনের তুলনায় ৬৭ কোটি ৬৭ লাখ টাকা কম। আগের দিন এ বাজারে ৫৮৪ কোটি ৮০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছিল। ডিএসইতে মোট লেনদেনে অংশ নিয়েছে ৩২৯টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৩৮টির, কমেছে ১৪৫টির। আর অপরিবর্তিত রয়েছে ৪৬টি কোম্পানির শেয়ার দর।

ডিএসইএক্স বা প্রধান মূল্য সূচক ১৮ পয়েন্ট কমে ৬ হাজার ২৪৮ পয়েন্টে অবস্থান করছে। ডিএসইএস বা শরীয়াহ সূচক ১ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে এক হাজার ৩৮৯ পয়েন্টে। আর ডিএস৩০ সূচক ৭ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ২ হাজার ২৬৪ পয়েন্টে।

অন্যদিকে আজ চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) ২৩ কোটি ০৭ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ৪৩.৫২ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ১৯ হাজার ৩৩৬ পয়েন্টে। সিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ২৪২টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৯৬টির, কমেছে ১০৮টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৩৬টির শেয়ার দর।