বন্ধই থাকবে ঢাকা ডায়িং গার্মেন্টস

0
1159

সিনিয়র রিপোর্টার : শেষ পর্যন্ত কারখানা বন্ধই রাখবে ঢাকা ডায়িং গার্মেন্টস কর্তৃপক্ষ। তবে শ্রম আইন অনুযায়ী শ্রমিকদের পাওনা বুঝিয়ে দেওয়ার আশ্বাস দিয়েছে তারা।

তৈরি পোশাকশিল্প মালিকদের সংগঠন বিজিএমইএ কার্যালয়ে গতকাল সোমবার ঢাকা ডায়িং নিয়ে একটি বৈঠক অনুষ্ঠিত। এতে শ্রমিক ও কারখানা কর্তৃপক্ষের প্রতিনিধি এবং বিজিএমইএর কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

সোমবার রাতে বৈঠক শেষে বিজিএমইএর সহসভাপতি মোহাম্মদ নাছির বলেন, শ্রমিকদের ছাঁটাই বেনিফিটের পাশাপাশি মানবিক কারণে এক মাসের অতিরিক্ত বেতন দেবে কারখানা কর্তৃপক্ষ। আগামী শুক্রবার শ্রমিকেরা পাওনা বুঝে পাবেন।

জানা যায়, রাজধানীর ইস্কাটনে পলমল গ্রুপের দি ঢাকা ডায়িং গার্মেন্টস কর্তৃপক্ষ গত মঙ্গলবার ১৫৪ ও বুধবার ৯ জন শ্রমিক ছাঁটাই করে। তার আগে গত ২৩ অক্টোবর কারখানার ট্রেড ইউনিয়নের আবেদন করলে তা তৃতীয়বারের মতো প্রত্যাখ্যাত হয়।

শ্রমিকদের অভিযোগ, ট্রেড ইউনিয়ন করার প্রক্রিয়ায় যেসব শ্রমিক যুক্ত ছিলেন তাঁদেরই ছাঁটাই করা হয়। কারণ চাকরিচ্যুত ১৬৩ শ্রমিকের মধ্যে প্রস্তাবিত ইউনিয়নের ১৬ সদস্যবিশিষ্ট কমিটির সবাই আছেন। শ্রমিক ছাঁটাইয়ের প্রতিবাদে গত বৃহস্পতিবার শ্রমিকেরা কাজ বন্ধ করে দেন। ছাঁটাইকৃতদের চাকরিতে পুনর্বহালসহ বিভিন্ন দাবিতে ভবনটিতে অবস্থান নেন শ্রমিকেরা। পরে ওই দিনই কারখানাটি বন্ধ ঘোষণা করে কারখানা কর্তৃপক্ষ।

কারখানাটির ট্রেড ইউনিয়ন গঠনে নেতৃত্ব দেওয়া সংগঠন গার্মেন্টস শ্রমিক সংহতি ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক স্মৃতি আখতার বলেন, শ্রমিকেরা ট্রেড ইউনিয়ন করতে চাওয়ার কারণেই কারখানাটি বন্ধ করেছে কর্তৃপক্ষ।

অবশ্য এই অভিযোগ অস্বীকার করে পলমল গ্রুপের পরিচালক কে এম মাহতাব উদ্দিন বলেন, এটা অবাস্তব কথা। দীর্ঘদিন ধরেই কারখানাটি ঘিরে এক ধরনের প্রোপাগান্ডা ছিল। ক্রয়াদেশ কম আসছিল। সে জন্যই গত সপ্তাহে শ্রমিক ছাঁটাই করা হয়।

তিনি জানান, কারখানার শ্রমিকের সংখ্যা ৯৭০ জন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here