ন্যাশনাল হাউজিংয়ের মুনাফা কম, লাফার্জ ও স্কয়ার টেক্সটাইলের বৃদ্ধি

0
847
স্টাফ রিপোর্টার : পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ব্যাংক-বহির্ভূত আর্থিক খাতের প্রতিষ্ঠান ন্যাশনাল হাউজিং ফিন্যান্সের মুনাফা চলতি বছরের এপ্রিল-জুন প্রান্তিকে ৪৪ শতাংশ কমেছে। অন্যদিকে বস্ত্র খাতের স্কয়ার টেক্সটাইলের গত ৬ মাসে মুনাফা বেড়েছে ৩ দশমিক ১৭ শতাংশ।
একই সঙ্গে লাফার্জ সুরমা সিমেন্ট লিমিটেডের ৬ মাসে শেয়ার প্রতি আয় বেড়েছে ৩৩ শতাংশ। কোম্পানিগুলো তাদের অর্ধবার্ষিক (জানুয়ারি-জুন) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করলে এ চিত্র দেখা যায়।

প্রতিবেদন অনুসারে এপ্রিল-জুন এ তিন মাসে কোম্পানিটির কর-পরবর্তী নেট মুনাফা হয়েছে ৩ কোটি ৮০ লাখ ৪০ হাজার টাকা, যা আগের বছর একই সময় ছিল ৬ কোটি ৭৯ লাখ ৬০ হাজার টাকা। এ সময় কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৩৬ পয়সা, যা আগের বছর একই সময় ছিল ৬৪ পয়সা।

অন্যদিকে সার্বিকভাবে ছয় মাসে কোম্পানিটির কর-পরবর্তী নেট মুনাফা দাঁড়িয়েছে ৯ কোটি ৯৭ লাখ ৩০ হাজার টাকা, যা আগের বছর একই সময় ছিল ৬ কোটি ৮৫ লাখ টাকা। এ সময় কোম্পানিটির ইপিএস হয় ৯৪ পয়সা, যা আগের বছর একই সময় ছিল ৬৪ পয়সা। এদিকে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) মঙ্গলবার শেয়ারের দর অপরিবর্তিত ছিল। সর্বশেষ ২৭ টাকায় এ শেয়ারের লেনদেন হয়। দিন শেষে এ শেয়ারের দর দাঁড়ায় ২৬ টাকা ৯০ পয়সা। এদিন মোট ১ লাখ ৬ হাজার শেয়ার ৭২ বারে লেনদেন হয়।

এদিকে ২০১৩ সালের ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হিসাব বছরের জন্য কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদ সাড়ে ১২ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ সুপারিশ করেছে। সমাপ্ত হিসাব বছরে এর মুনাফা হয়েছে ১৬ কোটি ৭৪ লাখ ৭০ হাজার টাকা, ইপিএস ১ টাকা ৫৭ পয়সা ও শেয়ারপ্রতি এনএভি ১৩ টাকা ৪০ পয়সা।

কোম্পানিটি ঋণমানে দীর্ঘমেয়াদে ‘এ২’ এবং স্বল্পমেয়াদে ‘এসটি-৩’ হিসেবে বিবেচিত হয়েছে। এর অর্থ হচ্ছে— ঋণ ঝুঁকি সক্ষমতায় ভালো অবস্থানে রয়েছে কোম্পানিটি। কোম্পানিটির ২০১২ সালের ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক প্রতিবেদন ও অন্যান্য তথ্যের ভিত্তিতে এ মূল্যায়ন করেছে ক্রেডিট রেটিং ইনফরমেশন অ্যান্ড সার্ভিসেস লিমিটেড (সিআরআইএসএল)।

২০১২ সালের ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হিসাব বছরের জন্য ৫ শতাংশ বোনাস লভ্যাংশ দেয়ায় কোম্পানিটিকে ‘এ’ থেকে ‘বি’ ক্যাটাগরিতে নামানো হয়েছে। সমাপ্ত হিসাব বছরে এ কোম্পানির ইপিএস হয়েছে ৬০ পয়সা, এনএভি ১৩ টাকা ৩৪ পয়সা ও কর-পরবর্তী নেট মুনাফা ৪ কোটি ১৪ লাখ ৪০ হাজার টাকা।

স্কয়ার টেক্সটাইল : বস্ত্র খাতের স্কয়ার টেক্সটাইলের ছয় মাসে মুনাফা বেড়েছে ৩ দশমিক ১৭ শতাংশ। এই সময়ে শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ৩ টাকা ২০ পয়সা। কোম্পানিটি অর্ধবার্ষিকী (জানুয়ারি-জুন’১৪) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করলে এই তথ্য পাওয়া যায়। ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ সূত্রে এই তথ্য জানা যায়।

আলোচিত প্রান্তিকে কোম্পানির (সুদ ব্যতীত) মুনাফা হয়েছে ৪৭ কোটি ২৮ লাখ টাকা। আর শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ৩ টাকা ২০ পয়সা। যা আগের বছর একই সময়ে ছিল ৪৫ কোটি ৮৩ লাখ টাকা এবং ইপিএস ছিল ৩ টাকা ১০ পয়সা।

গত ৩ মাসে (এপ্রিল-জুন’১৪) কোম্পানির মুনাফা হয়েছে ২২ কোটি ৯৪ লাখ টাকা। আর শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ১ টাকা ৫৫ পয়সা। যা আগের বছর একই সময়ে ছিল ২৪ কোটি ১৮ লাখ টাকা এবং ইপিএস ১ টাকা ৬৪ পয়সা।

লাফার্জ সুরমা সিমেন্ট : লাফার্জ সুরমা সিমেন্ট লিমিটেডের ছয় মাসে শেয়ার প্রতি আয় বেড়েছে ৩৩ শতাংশ। কোম্পানিটি অর্ধবার্ষিকী (জানুয়ারি-জুন’১৪) অনিরীক্ষিত আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করলে এই তথ্য পাওয়া যায়।

আলোচিত প্রান্তিকে কোম্পানির মুনাফা হয়েছে ১৪০ কোটি ২২ লাখ টাকা। আর শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ১ টাকা ২১ পয়সা। যা আগের বছর একই সময়ে ছিল ১০৬ কোটি ২০ লাখ টাকা এবং ইপিএস ছিল৯১ পয়সা।

গত তিন মাসে (এপ্রিল-জুন’১৪) কোম্পানির মুনাফা হয়েছে ৭৭কোটি ৪৩ লাখ টাকা। আর  শেয়ার প্রতি আয় হয়েছে ৬৭ পয়সা। যা আগের বছর একই সময়ে ছিল ৩৬ কোটি ১৬ লাখ টাকা এবং ইপিএস  ৩১ পয়সা।

উল্লেখ্য, গত ছয় মাসের হিসাবে লাফার্জ সুরমা ১২ কোটি ২৫ লাখ টাকা পুঞ্জীভূত লোকসানে রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here