গ্রেভস্টোন ডোজি ক্যান্ডেলস্টিক তৈরি করে ডিএসই এক্স ইনডেক্স

0
875

মেহেদী আরাফাত : সোমবার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ এর – ডিএসই এক্স ইনডেক্স দিনের প্রথম ভাগে ক্রয়চাপের ফলে কিছুটা ঊর্ধ্বমুখী প্রবনতা লক্ষ্য করা যায় এবং পরবর্তীতে দিনভর কিছুটা মিশ্র প্রবণতা লক্ষ্য করা গেলেও দিনের শেষভাগে পুনরায় বিক্রয় চাপের ফলে ডিএসই এক্স ইনডেক্স নিন্মমুখি হতে থাকে এবং ০.৪৫ পয়েন্ট বৃদ্ধি পেয়ে গ্রেভস্টোন ডোজি ক্যান্ডেলস্টিক  তৈরি করে। ডিএসই এক্স ইনডেক্স ০.৪৫ পয়েন্ট বৃদ্ধি পেয়ে ৯৩০.৮২ পয়েন্টে অবস্থান করছে, যা আগের দিনের তুলনায় ০.০০৯১% বৃদ্ধি পেয়েছে।

কয়েকদিন যাবত লক্ষ্য করা যাচ্ছে বাজারের শুরুতে ইনডেক্স ভাল পরিমাণ বৃদ্ধি পায় কিন্তু দিন শেষে পুনরায় আগের অবস্থানে ফিরে আসে এবং আজও তার ধারাবাহিকতা বজায় ছিল।

বর্তমানে ডিএসই এক্স ইনডেক্স এর পরবর্তী সাপোর্ট ৪৭৫০ পয়েন্টে এবং রেজিটেন্স ৫৩৬৮  পয়েন্টে অবস্থান করছে। আজ বাজারে এম.এফ.আই এর মান ছিল  ৪৩.২৯ এবং আল্টিমেট অক্সিলেটরের মান ছিল ৪৮.৪২ । আল্টিমেট অক্সিলেটর এবং এম.এফ.আই উভয়ই কিছুটা নিন্মমুখি আবস্থান করছে।

ডিএসইতে ১০ কোটি ৮৫ লাখ ১৯ হাজার ৬৩৭  টি শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড লেনদেন হয়, যার মূল্য ছিল ৪২৬.৪৮ কোটি টাকা। ডিএসইতে লেনদেন বৃদ্ধি পেয়েছে ৪৩ কোটি টাকা। ঢাকা শেয়ারবাজারে ৩০৪ টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের লেনদেন হয়েছে, যার মধ্যে দাম বেড়েছে ১৬০ টির, কমেছে ১০৭ টির এবং অপরিবর্তিত ছিল ৩৭ টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম।biuhbiunbiu

পরিশোধিত মূলধনের দিক থেকে দেখা যায়, আজ বাজারে চাহিদা বেশি ছিল ২০-৫০ কোটি টাকার পরিশোধিত মূলধনী প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের যা আগেরদিনের তুলনায় ৪১.৪৮% বৃদ্ধি পেয়েছে। অন্যদিকে হ্রাস পেয়েছে ৫০-১০০ কোটি টাকার পরিশোধিত মূলধনী প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের  যা আগেরদিনের তুলনায় ১৩.৭৯% কম। অন্যদিকে ১০০-৩০০ এবং ৩০০ কোটি টাকার ওপরে মুলধনী প্রতিষ্ঠানের লেনদেনের পরিমান গতকালের তুলনায় যথাক্রমে আজ ৮.০৬% এবং  ৬.৬১% বৃদ্ধি পেয়েছে।

পিই রেশিও ২০-৪০ এর মধ্যে থাকা শেয়ারের লেনদেন আগের দিনের তুলনায়  ৯.২% বৃদ্ধি পেয়েছে। হ্রাস পেয়েছে  পিই রেশিও ০-২০ এর মধ্যে  থাকা শেয়ারের লেনদেন যার পরিমান আগের দিনের তুলনায়  ৩.২৮% কম ছিল। পিই রেশিও ৪০ ওপরে থাকা শেয়ারের লেনদেন  আগের দিনের তুলনায় ২২.২৮% বৃদ্ধি পেয়েছে।

ক্যাটাগরির দিক থেকে আজ এগিয়ে ছিল ‘বি’ ক্যাটাগরির শেয়ারের লেনদেন যা আগেরদিনের তুলনায় ৬২.৪% বেশী ছিল। বৃদ্ধি পেয়েছে ‘জেড’ ক্যাটাগরির শেয়ারের লেনদেন যা আগেরদিনের তুলনায় যথাক্রমে ৩৬.৩১% বেশি ছিল। হ্রাস পেয়েছে ‘এন’ ক্যাটাগরির শেয়ারের লেনদেন  যা আগেরদিনের তুলনায় ২১.৩৭%  কম ছিল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here