কেডিএসের প্রিমিয়াম কেন বাতিল দাবি

0
3691

আইসিবি ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্টের বিনিয়োগকারী এস কে এনামুল কবীরের (বিও-১৬০৫৪২০০৪৭০৮৭৯৫১) পক্ষে আইনজীবী নোটিশ পাঠিয়েছেন।

প্রিমিয়াম বাতিলের জন্য নোটিশ একই সঙ্গে ৫ জনের কাছে পাঠানো হয়। তারা হলেন- নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান, কমিশনার মো: আরিফ খান, কেডিএস এক্সেসরিজের চেয়ারম্যান শামীম ইকবাল ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক সেলিম রহমান।

নোটিশে বলা হয়, দেশের ৩৫ লাখ বিনিয়োগকারী জন্য কেডিএস এক্সেসরিজের প্রিমিয়াম বোঝা হয়ে দাঁড়াবে। ফলে বিনিয়োগকারীররা ক্রমাগত লোকসানের সম্মুখিন হবে। তাই বাজারের সার্বিক স্থিতিশীলতার কথা চিন্তা করে অতি সত্ত্বর আইপিও প্রক্রিয়া বন্ধ করার আবেদন করা হয়েছে।

প্রসপেক্টাস অনুযায়ী, ২০১২ সালে করপূর্ববর্তী মুনাফার ওপর ১৭.৪৯ শতাংশ হারে কর সঞ্চিতি রাখে কোম্পানি কর্তৃপক্ষ। কিন্তু ২০১৩ সালে কমিয়ে রাখা হয়েছে ১৪.১৭ শতাংশ, যাতে ২০১৩ সালে কর সঞ্চিতিজনিত ব্যয় কম হয়েছে। ২০১২ সালের থেকে ২০১৩ সালে টেক্স প্রদানের পরিমাণও বেশি।

অন্যদিকে, ২০১০, ২০১২ ও ২০১৩ সালে বোনাস শেয়ার প্রদান করেছে। ৩ বছরই কোম্পানিটি যে পরিমাণ মুনাফা করেছে তার চেয়ে বেশি লভ্যাংশ প্রদান করেছে। ফলে মুনাফা করা সত্ত্বেও ৩ বছর সংরক্ষিত আয় কমেছে কোম্পানির।

শ্রম আইন অনুযায়ী নীট আয়ের ৫ শতাংশে শ্রমিকদের উন্নয়নে ফান্ড গঠন ও ফান্ডের দুই-তৃতীয়াংশ শ্রমিকদের মধ্যে বিতরণ করা বাধ্যতামূলক। ২০০৬ সাল থেকে ফান্ড গঠনের বিষয়টি বাধ্যতামূলক করা হলেও কেডিএস এক্সেসরিজে ২০১০ সালে গঠন করে। ফান্ড গঠন হলেও শ্রমিকদের কোনো অর্থ বিতরণ করেনি।

পেছনের খবর : কেডিএসের ‘আমলনামা’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here